নিজ এলাকায় সাধারণ শিক্ষার্থীদের পাশে ছাত্রনেতা হাসান আল মামুন

সারাদেশের শিক্ষার্থীদের জন্য কাজ করে এবার নিজ এলাকার অসচ্ছল শিক্ষার্থীদের সহযোগিতায় এগিয়ে এসেছেন বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদের আহবায়ক হাসান আল মামুন। বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ২৫ জন শিক্ষার্থীকে আর্থিক সহযোগিতা করেছেন এই ছাত্রনেতা।

জানা গেছে, নেত্রকোনায় অবস্থানরত বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী টিউশন করে চলতেন এবং পরিবারের দেখাশোনা করতেন। তবে করোনায় টিউশনি বন্ধ হওয়ায় বিপাকে পড়েন এসব শিক্ষার্থী। তাদেরকে সহযোগিতা করার উদ্যোগ নেন হাসান আল মামুন। বিপাকে পড়া এমন ২৫ জন শিক্ষার্থীকে নগদ অর্থ দিয়ে সহযোগিতা করেছেন তিনি।

বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদের আহবায়ক হাসান আল মামুন জানান, নিজ জেলার আর্থিকভাবে অসচ্ছল ছাত্রছাত্রীদের সহযোগিতার উদ্যোগ হাতে নিয়েছিলাম। নেত্রকোনার কয়েকজন কৃতি সন্তান আমার আহবানে সাড়া দিয়েছেন। যুগ্ম সচিব হায়দার জাহান ফারাস, নির্বাহী মাজিস্ট্রেট আল বাসিরুল ইসলাম রাজিব, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক আরমান স্যার, শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রভাষক ইকবাল হাসান এই উদ্যোগে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করেছেন।

কোটা সংস্কার আন্দোলনের এই নেতা আরো জানায়, অনেক শিক্ষার্থী আবেদন করেছিলেন কিন্তু সবাইকে সহায়তা করার সুযোগ হয়নি। প্রাথমিক পর্যায়ে ২৫ জন শিক্ষার্থীকে সহযোগিতা করা হয়েছে, পরবর্তী সময়ে সুযোগ হলে আবার সহযোগিতা করার চেষ্টা করবো। ২৫ জনের মধ্যে ১০ জন শিক্ষার্থীকে ছাত্র অধিকার পরিষদের পক্ষ থেকে সহায়তা করা হয়েছে। প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে ৫০০/১০০০ টাকা করে সহায়তা করা হয়েছে, অধিকাংশ শিক্ষার্থীকে ১০০০ টাকা করে দেওয়া হয়েছে। ফান্ড অল্প হওয়ায় কিছু শিক্ষার্থীকে ৫০০ টাকা করে দেওয়া হয়েছে।

নেত্রকোনা জেলার বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় – কলেজ পড়ুয়া ভাই- বোনেরা যে কোনো প্রয়োজন বিনা সংকোচে সমস্যার কথা জানালে পাশে থাকার চেষ্টা করার কথাও জানান এই ছাত্রনেতা।

এশিয়াবিডি/ডেস্ক/সাইফ

আরও সংবাদ