শ্রীমঙ্গলে দেশীয় কিশোর গ্যাংয়ের ৭ সদস্য আটক

সুরমা নিউজ:
শ্রীমঙ্গলে কিশোর গ্যাংয়ের সাত সদস্যকে আটক করেছে থানা পুলিশ। গত মঙ্গলবার বিকেল চারটায় আশিদ্রোন ইউনিয়নের বেগম রাসুলজান আব্দুল বারী উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে থেকে তাদের আটক করা হয়। এসময় তাদের নিকট থেকে দেশীয় অস্ত্র দুইটি রামদা, একটি লোহার পাইপ, তিনটি ছুরি ও একটি তারের টুকরা উদ্ধার করা হয়।

বুধবার দুপুর দুইটার দিকে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। কিশোর গ্যাং সদস্যরা হলো- উপজেলার আশিদ্রোন ইউনিয়নের দক্ষিণ টিকরিয়া গ্রামের বাবুল মিয়ার ছেলে রাসেল মিয়া (১৬), শহরের বারিধারা এলাকার শাহ্‌ আলমের ছেলে ছাব্বির মিয়া (১৮), পরবেশ মিয়ার ছেলে কামরুল মিয়া (১৮), একই এলাকার মৃত কাশেম মিয়ার ছেলে নাঈম মিয়া (১৮), তারা মিয়ার ছেলে রুয়েল মিয়া (১৮), চন্দ্রমনি দে’র ছেলে চয়ন দে (১৮) ও জেটি রোড এলাকার নুরুল আমিনের ছেলে নাহিদ মিয়া (১৮)। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা বলে, বেগম রাসুলজান আব্দুল বারী উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর দুই শিক্ষার্থী মুমিন মিয়া ও মনির মিয়া সঙ্গে অষ্টম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থী রাসেল মিয়া পূর্ব কথা কাটাকাটির জের ধরে কিশোর গ্যাং এর সদস্যদের রাসেল মিয়া খবর দিলে তারা সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের উদ্দেশ্যে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সেখানে যায়।

শ্রীমঙ্গল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো.আব্দুছ ছালেক জানান, সোমবার বিকালে বেগম রাসুলজান আব্দুল বারী উচ্চ বিদ্যালয়ে রাস্তার পাশে একদল কিশোর সন্ত্রাসী তারা অপরাধ সংঘটিত করার উদ্দেশ্যে দেশী অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে জড়ো হলে এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ তাদের আটক করে পুলিশকে জানালে তাৎক্ষণিক সময় ঘটনাস্থলে থেকে পুলিশ দেশীয় অস্ত্রসহ সাতজনকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। আটককালে তাদের কাছ থেকে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র উদ্ধার করা হয়। তিনি বলেন, তাদের বিরুদ্ধে শ্রীমঙ্গল থানার এস আই মুহাম্মদ আসাদুর রহমান বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

আরও সংবাদ
error: You are under arrest !!